শনিবার   ০৮ অক্টোবর ২০২২   আশ্বিন ২২ ১৪২৯   ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

 ফরিদপুর প্রতিদিন
সর্বশেষ:
দেশের পাহাড়ী এলাকায় কফি চাষ জনপ্রিয় হচ্ছে শুরু হয়েছে কক্সবাজার-সেন্টমার্টিন পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল সাজেকে পর্যটকের ধুম, কোনো রুম ফাঁকা নেই ভোক্তা পর্যায়ে এখনই বাড়ছে না বিদ্যুতের দাম দলে যাগ দিয়েছেন সাকিব, নিউজিল্যান্ডে পরিপূর্ণ টিম ফরিদপুরে সরকারি বরাদ্দের ২০০ বস্তা চাল জব্দ আলফাডাঙ্গায় ড্রাগন ও লেবু গাছের সঙ্গে এ কেমন শত্রুতা!
৪৮

রহস্যে ঘেরা হ্রদ, খনে খনে বদলে যায় পানির রং

প্রকাশিত: ২৬ আগস্ট ২০২২  

মহারাষ্ট্রের বুলধনা জেলায় রয়েছে এমন একটি হ্রদ যার পানির রং বদলে যায় মাঝেমধ্যেই। বিজ্ঞানীদের দাবি, মুম্বই থেকে ৫০০ কিলোমিটার দূরে বুলধনা জেলার এই হ্রদটি হাজার হাজার বছর আগে উল্কাপাতের ফলে তৈরি। বুলধনার এই লবণাক্ত পানির হ্রদ পর্যটন কেন্দ্র হিসেবেও বেশ পরিচিত। বছর খানেক আগেই এই হ্রদের পানির রং বদলে গোলাপি হয়ে যায়।

গতবছর লোনার হ্রদের পানির এই রং বদল ঘিরেই শোরগোল পড়ে গিয়েছিল সাধারণ মানুষের মধ্যে। রং বদলের কারণ নিয়ে বিজ্ঞানী ও গবেষকদের মধ্যেও ছিল ধন্দ। রং বদলের কারণ হিসেবে পানির নিচে থাকা জলজ উদ্ভিদের রং পরিবর্তনকে দায়ী করেছিলেন কেউ। 

কেউ আবার জানিয়েছিলেন, লকডাউনের জেরে দূষণ কমে যাওয়াই এর কারণ। হ্রদের বদলে যাওয়া রঙের ছবি-ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ভাইরাল হয়েছিল নেটমাধ্যমেও।

শুধু রং বদলই নয়, আরো অনেক রহস্য রয়েছে পরিধিতে প্রায় ১.২ কিলোমিটার এই হ্রদকে কেন্দ্র করে। অদ্ভুত এই হ্রদে একই সঙ্গে দুই ধরনের অম্লত্বের পানি দেখা যায়, যা পরস্পর মিশ্রিত হয় না। আশ্চর্যের বিষয় হলো, এই হ্রদের মাটিতে যে ধরনের খনিজ পদার্থ পাওয়া যায় তা অবিকল চাঁদের মাটিতে পাওয়া খনিজের মতো।

 ফরিদপুর প্রতিদিন
 ফরিদপুর প্রতিদিন