শনিবার   ২০ জুলাই ২০২৪   শ্রাবণ ৪ ১৪৩১   ১৩ মুহররম ১৪৪৬

 ফরিদপুর প্রতিদিন
৫০৩

কাপ্তাই পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের চারটি ইউনিট সচল

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৩ জুলাই ২০২৪  

টানা কয়েক দিন বৃষ্টির ফলে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে কাপ্তাই হ্রদের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় রাঙ্গামাটি জেলার কাপ্তাই কর্ণফুলী বিদ্যুৎ কেন্দ্রের বিদ্যুৎ উৎপাদন বেড়েছে।   মঙ্গলবার (২ জুলাই) সকাল ৯টা পর্যন্ত এই কেন্দ্রের পাঁচটি ইউনিটের মধ্যে চারটি ইউনিট থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়েছে ১৬৪ মেগাওয়াট।

কর্ণফুলী পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ব্যবস্থাপক এটিএম আব্দুজ্জাহের জানান, টানা বৃষ্টিতে  কাপ্তাই হ্রদের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় মঙ্গলবার সকাল ৯টা পর্যন্ত কর্ণফুলী পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উত্পাদন হয়েছে ১৬৪ মেগাওয়াট।

তার মধ্যে ১ নাম্বার ও ২ নাম্বার ইউনিট থেকে ৪২ মেগাওয়াট করে ৮৪ মেগাওয়াট এবং ৪ নাম্বার ও ৫ নাম্বার ইউনিট থেকে ৪০ মেগাওয়াট করে ৮০ মেগাওয়াটসহ সর্বমোট ১৬৪ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদিত হচ্ছে। যেটি চলতি বছরে কর্ণফুলী পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের সর্বাধিক উৎপাদন। পানির পরিমাণ যদি আরও বাড়তে থাকলে বিদ্যুৎ উৎপাদন আরও বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানান তিনি। বর্তমানে ৩ নাম্বার ইউনিট বন্ধ রয়েছে বলেও তিনি জানান।

এদিকে কর্ণফুলী পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কন্ট্রোল রুমের দায়িত্বরত প্রকৌশলীরা জানান, বছরের এই সময় কাপ্তাই হ্রদে পানির পরিমাণ রুলকার্ভ অনুযায়ী ৮৪ দশমিক ১৬ ফুট এমএসএল থাকার কথা থাকলেও মঙ্গলবার কাপ্তাই হ্রদে পানির পরিমাণ রয়েছে রুলকার্ভ অনুযায়ী ৮৩ দশমিক ৬৯ ফুট মিন সি লেভেল। যা গত কয়েক দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ পানির লেভেল। তবে কাপ্তাই হ্রদের পানির ধারণক্ষমতা ১০৯ ফুট মিন সি লেভেল।

উল্লেখ, রাঙ্গামাটি কাপ্তাইয়ে অবস্থিত দেশের একমাত্র পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের পাঁচটি ইউনিট থেকে সর্বমোট ২৩০ থেকে ২৪০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা সম্ভব। তবে কাপ্তাইয়ে বিদ্যুৎ উৎপাদন অব্যাহত রাখতে হ্রদের পানি না কমাতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন স্থানীয় জনসাধারণ। কারণ পানি বাড়লেও পরিকল্পিতভাবে কাপ্তাই হ্রদে ড্রেজিং না হওয়াতে হ্রদের ভেতর পলি জমেছে। ফলে এর ড্রেজিং করা জরুরি বলে দাবি করে এলাকাবাসী।

 ফরিদপুর প্রতিদিন
 ফরিদপুর প্রতিদিন
এই বিভাগের আরো খবর