সোমবার   ১৮ জানুয়ারি ২০২১   মাঘ ৫ ১৪২৭   ০৪ জমাদিউস সানি ১৪৪২

 ফরিদপুর প্রতিদিন
সর্বশেষ:
শপথের দিনই মুসলিমদের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নেবেন বাইডেন বইমেলা কবে হবে চূড়ান্ত করবেন প্রধানমন্ত্রী পদ্মায় ধরা পড়লো ২০ কেজি ওজনের বাঘাইড় বাংলাদেশে টিকা পাঠানোর প্রক্রিয়া শুরু সেরামের মাগুরায় বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ১

এই প্রথম নিজের ছেলের ছবি প্রকাশ করলেন পূজা

প্রকাশিত: ১৩ জানুয়ারি ২০২১  

রাজ শুভশ্রীর পথ অনুসরণ করতে চাননি অভিনেত্রী। স্টার কিডের স্পটলাইট থেকে কিছু দিনের জন্য হলেও দূরে রাখতে চেয়েছিলেন। কিন্তু এক জন পাবলিক ফিগার হওয়ার কিছু সমস্যা আছেই। আর সে কারণেই নিজের সিদ্ধান্তে অনড় থাকতে পারলেন না পূজা বন্দ্যোপাধ্যায়।

প্রথম বার মা হওয়ার আস্বাদ নিচ্ছেন অভিনেত্রী। গর্ভধারণের দীর্ঘ ৯ মাস ও প্রাণ সৃষ্টির পরবর্তী ৩ মাস কেটে গেল। এই ৩৬৫টা দিনের অভিজ্ঞতার কিছু টুকরোর আভাস দিলেন আনন্দবাজার ডিজিটালকে। এরই সঙ্গে ছেলের ছবি প্রকাশ করার সিদ্ধান্ত নিয়েও মুখ খুললেন পূজা।

প্রথম বার গর্ভধারণ। কেবল মাত্র ম্যাটার্নিটি লিভ নিতে চেয়েছিলেন অভিনেত্রী। চাননি গোটা দুনিয়া স্তব্ধ হয়ে যাক। কিন্তু ভাগ্যের লিখন কে টলাতে পারে। গভীর অসুখে জর্জরিত হয়ে পড়ল চারপাশ। ভেবেছিলেন, প্রথম সন্তানের আহ্বানে কোনও খামতি রাখবেন না। নিজেকে আদরে রাখবেন। ইচ্ছে ছিল পরিবার, আত্মীয়সজন ও বন্ধুবান্ধবদের ভিড়ের মাঝে গর্ভে বারুক তাঁর সন্তান। কিন্তু একা পড়ে গেলেন। এমনকি কলকাতা থেকে মুম্বইত পৌঁছতে পারেননি পূজার মা। যাতায়াত করা তখন আরও বিপজ্জনক ছিল। তবে হবু মায়ের সঙ্গ ছাড়েননি হবু-বাবা কুণাল বর্মা। পূজার স্বামী পুরো সময়টায় বাকি খামতিগুলোকে ভরাট করে দিয়েছেন। তাই আজ আর ততটাও আফসোস নেই পূজার। তার পর তো কৃশিব এল। কৃষ্ণ ও শিবের নাম মিলে নাম রাখা হল ‘কৃশিব’। ক্ষণিকের জন্মযন্ত্রণার পর পুরো জীবনটাই পাল্টে গেল যেন অভিনেত্রীর।

কৃশিবের সঙ্গে মা পূজা বন্দ্যোপাধ্যায়

কৃশিবের জন্মের পরের সময়টা কেমন কাটছে?

অভিনেত্রী জানালেন, ''যতটা সম্ভব, ততটা সময় ওর জন্য বরাদ্দ করা। প্রথমত, কৃশিব এখনও মায়ের দুধ খায়। তার উপরে বাচ্চাদের জন্য এই সময়টা খুব গুরুত্বপূর্ণ। বড় হয়ে যাওয়ার তবু তাঁদের একা ছাড়া যায়। কিন্তু এখন? মাত্রই পৃথিবীতে এসেছে কৃশিব। ওর সমস্ত বিস্ময়, প্রতিক্রিয়া- সব কিছুর সাক্ষী থাকতে চাই। একটা ছোট্ট ঘটনাও মিস করতে চাই না।''

সম্প্রতি বাবা ও মায়ের সঙ্গে একটু একটু করে রাস্তায় বেরচ্ছে কৃশিব। কৃশিবের  পূজা জানালেন, ''আমি জানি, কেউ না কেউ ওর ছবি তুলে পোস্ট করে দেবেই। তাই ভাবলাম, প্রথম ছবিটা আমিই প্রকাশ করি। সেই অধিকার তো সবথেকে বেশি আমারই।’’ যদিও প্রথম ৩ মাস পূজা লুকিয়ে রেখেছিলেন তাঁর ছেলেকে। এমনকি আত্মীয়সজনের কাছেও ছবি পাঠাননি। আশঙ্কা ছিল, কোনও না কোনও জায়গা থেকে ছবি প্রকাশ হয়ে যাবে।

কৃশিব তার বাবা-মায়ের মাঝখানেই ঘুমোয়। তবে মাঝরাতে উঠে এখন আর মায়ের ঘুম ভাঙায় না। ৩ মাস হয়ে গেল যে! তবে মা তাঁকে একা রাখতে চান না বলে এক দিনের শ্যুট নিচ্ছেন তিনি। তবে মা না থাকলেও বাবা, ঠাকুমা-ঠাকুর্দা সবাই মিলে তাকে ঘিরে থাকেন। মাঝে মাঝ‌ে দিদাও যাওয়া আসা করেন।

পূজা ও তাঁর স্বামী দু'জনে মিলে তাঁদের বেশির ভাগ সময়ই ছেলের সঙ্গে কাটাচ্ছেন।

পূজার সঙ্গে কথা বলে জানা গেল, মার্চ মাসে কলকাতায় শ্যুটের কাজে আসছেন। আর এই প্রথম বার পূজার সঙ্গে তাঁর রাজপুত্তুরও কলকাতা শহরে পা রাখবেন।

 ফরিদপুর প্রতিদিন
 ফরিদপুর প্রতিদিন